৩০শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

EN

সোহরাওর্দী উদ্যানে বিএনপির মহাসমাবেশ অনুষ্ঠিত, সংঘাত নয়, ঐক্যের আহবান।

বার্তা সম্পাদক

প্রকাশিত: ১০:৪৮ অপরাহ্ণ , ১২ নভেম্বর ২০১৭, রবিবার , পোষ্ট করা হয়েছে 5 years আগে

ডেস্ক রিপোর্ট:

রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে বিএনপি আয়োজিত লক্ষ জনতার জনসভায় ‘সংঘাতের বদলে ঐক্যে’র আহবান জানিয়ে বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া বলেছেন, আগামী নির্বাচন হতে হবে একটি নিরপেক্ষ নির্দলীয় সরকারের অধীনে। দলীয় সরকারের অধীনে কোনো নির্বাচন হবে না। বিএনপি প্রধান বলেন, দেশের জনগণ পরিবর্তন চায়। এ পরিবর্তন আসতে হবে নির্বাচন ও ভোটের মাধ্যমে। যে নির্বাচনে জনগণ নির্ভয়ে ভোট কেন্দ্রে যাবে, ভোট দেবে। এজন্য প্রয়োজন নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন। নির্দলীয় সরকারের এ দাবি তুলে ধরার পাশাপাশি নির্বাচন কমিশনকেও সরকারের অন্যায় আদেশ না মানার আহবান জানান বিএনপি চেয়ারপারসন। তিনি বলেন, একটি অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠান করার দায়িত্ব আপনাদের। আপনারা সরকারের কথা শুনতে পারেন কিন্তু তাদের অন্যায় আদেশ মানতে পারেন না। সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য ইভিএম বাতিল করতে হবে। ম্যাজিস্ট্রেসি ক্ষমতা দিয়ে সেনাবাহিনী নিয়োগ করতে হবে। খালেদা জিয়া বলেন, আমরা রাজনীতিতে গুনগত পরিবর্তন ও ঐক্যের রাজনীতি করতে চাই। আলাপ আলোচনা ছাড়া কোনোভাবেই এ পরিবর্তন আনা সম্ভব নয়। সংসদে থাকুক আর বাইরে থাকুক সবার সাথে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নিতে হবে। ক্ষমতাসীনদের উদ্দেশে খালেদা জিয়া বলেন, আমরা প্রতিহিংসার রাজনীতি করবো না। ক্ষমতায় গেলে আওয়ামী লীগের প্রতি প্রতিহিংসা নয়, আপনাদের শুদ্ধি করবো। জাতীয় বিপ্লব ও সংহতি দিবস উপলক্ষে আজ রোববার এ জনসভার আয়োজন করে বিএনপি। দুপুর ২টায় বিএনপির সহসাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল আউয়াল খানের কোরআন তেলোওয়াতের মধ্য দিয়ে জনসভার কার্যক্রম শুরু হয়। জনসভায় সভাপতিত্ব করেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মওদুদ আহমদ, রফিকুল ইসলাম মিয়া, জমিরউদ্দিন সরকার, মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, আবদুল মঈন খান, নজরুল ইসলাম খান, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান হাফিজউদ্দিন আহমেদ, আবদুল্লাহ আল নোমান, শাহজাহান ওমর, বরকতউল্লাহ বুলু, মোহাম্মদ শাহজাহান, খন্দকার মাহবুব হোসেন, এ জেড এম জাহিদ হোসেন, আহমেদ আজম খান, জয়নাল আবেদীন, শওকত মাহমুদ, চেয়াপারসনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য আমানউল্লাহ আমান, আবুল খায়ের ভুঁইয়া, যুগ্মমহাসচিব মাহবুবউদ্দিন খোকন, সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, খায়রুল কবির খোকন, হারুনুর রশীদ প্রমূখ বক্তব্য রাখেন। অঙ্গসংগঠনের মধ্যে বিএনপি মহানগর দক্ষিণের হাবিবউন নবী খান সোহেল, মহানগরের মুন্সি বজলুল বাসিত আনজু, যুব দলের সাইফুল ইসলাম নিরব, স্বেচ্ছাসেবক দলের শফিউল বারী বাবু, শ্রমিক দলের আনোয়ার হোসেন, মহিলা দলের সুলতানা আহমেদ, ছাত্রদলের রাজীব আহসান প্রমূখ বক্তব্য দেন। জিয়া পরিষদের চেয়ারম্যান কবির মুরাদ, মহাসচিব ড. এমতাজ হোসেন, ভাইস চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম ও আবুল কালাম আজাদ। সমাবেশ পরিচালনা করেন প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী ও সহ-প্রচার সম্পাদক আমিরুল ইসলাম খান আলীম। অনুষ্ঠানে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য রফিকুল ইসলাম মিয়া, জ্যেষ্ঠ নেতা হারুন আল রশীদ, উকিল আব্দুস সাত্তার ভূইঁয়া, শেখ মোহাম্মদ শামীম, মাহমুদুল হাসান, আলতাফ হোসেন চৌধুরী, মীর নাসির, অধ্যাপক আবদুল মান্নান, রুহুল আলম চৌধুরী, শামসুজ্জামান দুদু, নিতাই রায় চৌধুরী, গিয়াস কাদের চৌধুরী, শওকত মাহমুদ, হাবিবুর রহমান হাবিব, মিজানুর রহমান মিনু, আবদুস সালাম, ভিপি জয়নাল আবেদীন, শাহজাদা মিয়া, ফরহাদ হোসেন ডোনার, মজিবুর রহমান সারোয়ার, ফজলুল হক মিলন, রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু, মাহবুবে রহমান শামীম, সাখাওয়াত হোসেন জীবন, বিলকিস জাহান শিরিন, সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স, শামা ওবায়েদ, গৌতম চক্রবর্তী, সানাউল্লাহ মিয়া, মাসুদ আহমেদ তালুকদার, সালাহউদ্দিন আহমেদ, আবদুল হাই, আশরাফউদ্দিন আহমেদ উজ্জল, নুরী আরা সাফা, হাবিবুল ইসলাম হাবিব, এ বি এম মোশাররফ হোসেন, আজিজুল বারী হেলাল, মীর সরফত আলী সপু, শিরিন সুলতানা, ফাওয়াজ হোসেন শুভ, নাজিমউদ্দিন আলম, আবদুস সালাম আজাদ, শরীফুল আলম, আবদুল আউয়াল খান, তাইফুল ইসলাম টিপু, মুনির হোসেন, বেলাল আহমেদ, মাহবুবুল হক নান্নু, আমিরুল ইসলাম আলীম, আসাদুল করীম শাহিন, রেহানা আখতার রানু, ভিপি হারুনুর রশীদ, শহীদুল আলম, শামসুল আলম তোহা, কাজী আবুল বাশার, আহসানউল্লাহ হাসান, খন্দকার আবু আশফাক প্রমূখ নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। অঙ্গসংগঠনের যুব দলের সুলতান সালাউদ্দিন টুকু, মোরতাজুল করীম বাদরু, স্বেচ্ছাসেবক দলের আবদুল কাদের ভুইয়া জুয়েল, মুক্তিযোদ্ধা দলের আবুল হোসেন, সাদেক আহমেদ খান, শ্রমিক দলের আনোয়ার হোসেইন, নুরুল ইসলাম খান নাসিম, মহিলা দলের আফরোজা আব্বাস, হেলিন জেরিন খান, ছাত্র দলের আকরামুল হাসান, নিলোফার চৌধুরী মনি, শাম্মী আখতার, চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের শায়রুল কবির খান, শামসুদ্দিন দিদার প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন। সূত্র: দৈনিক নয়াদিগন্ত

 

আপনার মন্তব্য লিখুন

আর্কাইভ

September 2022
M T W T F S S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
2627282930  
আরও পড়ুন