৩০শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

EN

সরাইলে করোনায় মারা যাননি ইমাম হাফেজ মোঃ মুছা মিয়া, মৃত্যুর আগে দিয়ে যাওয়া নমুনা রিপোর্ট করোনা নেগেটিভ

বার্তা সম্পাদক

প্রকাশিত: ৯:৩৭ অপরাহ্ণ , ১১ জুন ২০২০, বৃহস্পতিবার , পোষ্ট করা হয়েছে 2 years আগে

 

এম এ করিম সরাইল নিউজ ২৪.কমঃ
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল উপজেলার সদর ইউনিয়নের আলীনগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দক্ষিণ পার্শ্বের বাড়ির বাসিন্দা ও বাংলাদেশ গ্যাস ফিল্ড ঘাটুরা লোকেশন-১ মসজিদের সাবেক ইমাম হাফেজ মোঃ মুছা মিয়া(৬০) করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেননি। ফুসফুসে পানি জমে অসুস্থ হয়ে কয়েকদিন জ্বরে ভোগে গত মঙ্গলবার(৯জুন) দিবাগত রাত ১০টা ৫০ মিনিটে তিনিব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে ইন্তেকাল করেছেন। পরে লাশ বাড়িতে এনে করোনা সন্দেহে রাতেই দাফন করা হয়। মারা যাওয়ার কয়েকদিন আগে হাফেজ মূছা মিয়া নিজেই সরাইল হাসপাতালে গিয়ে পরীক্ষার জন্য নমুনা দিয়ে আসেন। ফলাফল আসার ২দিন আগেই তিনি গত মঙ্গলবার মারা যান। মারা যাওয়ার পর বিভিন্ন অনলাইন পোর্টালে ” সরাইলে করোনায় মারা গেছেন ইমাম” শিরোনামে খবর প্রকাশিত হয়। এতে করোনা রোগী সন্দেহে রাতের অন্ধকারেই পরিবারের লোকজন দাফন কাজ দ্রুত সম্পন্ন করেন। লাশ দাফনের পর থেকে ঘরবন্দী হয়ে বসবাস করেন মৃত ব্যক্তির শোকাহত স্বজনরা। করোনার ভয়ে আত্বীয়-স্বজনসহ প্রতিবেশীরাও সমবেদনা জানাতে যাননি তাদের বাড়িতে। মারা যাওয়ার ২দিন পর আজ বৃহস্পতিবার(১১জুন) মৃত ইমাম হাফেজ মোঃ মুছা মিয়ার নেগেটিভ করোনা রিপোর্ট হাতে পেয়েছেন পরিবারের লোকজন। রিপোর্ট হাতে পাওয়ার পর নতুনভাবে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন স্বজনরা। স্বজন হারানোর বেদনার পাশাপাশি করোনা বদনামের বেদনায় হু হু করে কেদেঁ ওঠে তাদের মন। মৃত ইমাম হাফেজ মোঃ মুছা মিয়ার পরিবারের লোকজন জানান, করোনা ভাইরাস না থাকা সত্ত্বেও করোনায় মারা যাওয়ার বদনাম নিয়ে মরতে হয়েছে প্রায় ৩৮ বছর ধরে ইমামতি করে যাওয়া একজন সুনাম ধন্য হাফেজকে। করোনার ভয়ে প্রকৃত চিকিৎসাও পাননি তিনি। সামাজিকভাবে হয়েছেন হেয় প্রতিপন্ন। আত্বীয়-স্বজনসহ শুভাকাংখীদের করোনার ভয়ে জানাযায় উপস্থিতি হয়ে দোয়া করা থেকে বঞ্চিত হয়েছেন মৃত ব্যক্তি। ধারণা বা অনুমান নির্ভর সংবাদ পরিবেশনের জন্য মৃত ইমাম হাফেজ মুছা মিয়ার মত যেন কাউকে হেয় প্রতিপন্ন ও অধিকার বঞ্চিত হতে না হয় সে দিকে খেয়াল রেখে সংবাদ পরিবেশন করতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি অনুরোধ করেছেন মৃত ইমাম হাফেজ মুছা মিয়ার পরিবারের লোকজন। এছাড়া সামান্য জ্বর বা শারীরিক অসুস্থতায় করোনা সন্দেহ করে কাউকে হেয় প্রতিপন্ন না করে প্রাপ্য চিকিৎসা ও প্রাপ্য সামাজিক মর্যাদা থেকে যেন কাউকে বঞ্চিত না করা হয় এ ব্যপারে সামাজিকভাবে সকলকে সজাগ দৃষ্টি রাখার অনুরোধ জানিয়ে মৃত ইমাম হাফেজ মুছা মিয়ার রুহের মাগফেরাতের জন্য সকলের দোয়াও কামনা করেছেন স্বজনরা।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আর্কাইভ

September 2022
M T W T F S S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
2627282930  
আরও পড়ুন