১৩ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৩০শে চৈত্র, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

EN

সরাইলে অগ্নিকান্ডে ২টি বসতঘর পুড়ে ছাই, অগ্নিদগ্ধ হয়ে ৩টি গরুর মৃত্যু, ১০ লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি

বার্তা সম্পাদক

প্রকাশিত: ১:০৮ অপরাহ্ণ , ১২ মার্চ ২০২১, শুক্রবার , পোষ্ট করা হয়েছে 3 years আগে

 

এম এ করিম সরাইল নিউজ ২৪.কমঃ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার সরাইলে অগ্নিকান্ডে ২টি বসতঘর পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। একই সাথে অগ্নিদগ্ধ হয়ে মারা গেছে ৩টি গরু। উপজেলার শাহজাদাপুর ইউনিয়নের শাহজাদাপুর ১ং ওয়ার্ড মুসলিমপাড়ার টুনু মিয়ার বসতঘরে শুক্রবার(১২ মার্চ) রাত ২টা ৩০মিনিটে অগ্নিকান্ডের এ ঘটনা ঘটে।
প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয় এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, শাহজাদাপুর গ্রামের টুনু মিয়ার বসতঘরে রাত আড়ায়টার দিকে মশা তাড়ানোর কয়েল থেকে হঠাৎ আগুনের সূত্রপাত হয়। এ সময় টুনু মিয়ার পরিবারের লোকজনের সুর চিৎকারে স্থানীয় এলাকাবাসী এগিয়ে এসে আগুন নিভাতে চেষ্টা চালান। এক পর্যায়ে আগুনের লেলিখান শিখা টুনু মিয়ার দুটি বসতঘরে ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় পরিবারের লোকজন প্রাণ বাঁচাতে বাহিরে বের হয়ে আসলেও পার্স্ববর্তী গোয়ালঘরে ৩টি গরু আটকা পড়ে যায়।
অগ্নিকান্ড চলাকালীন বাড়ির পার্শ্বে থাকা বৈদ্যুতিক খুঁটি থেকে নেওয়া বসতঘরটিতে বৈদ্যুতিক লাইনে বিদ্যুৎ চালু ছিল। এ সময় ভয়ে উপস্থিত কেউই ঘরে প্রবেশ করতে না পারায় ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ সবচেয়ে বেশি হয়ে বলে স্থানীয় লোকজনের ধারণা।

উপজেলা সদরের সাথে শাহজাদাপুর গ্রাম পর্যন্ত সড়ক যোগাযোগ থাকলেও শাহজাদাপুর গ্রামের পার্শ্ববর্তী খালের উপর ব্রিজ না থাকায় ঘটনাস্থলে ফায়ার সার্ভিসের গাড়ি যাওয়া সম্ভব হয়নি বলে স্থানীয় সূত্র জানায়। গণমাধ্যম কর্মীদের কাছে প্রত্যক্ষদর্শী লোকজনের অভিযোগ, অগ্নিকান্ড চলাকালীন সময়ে বৈদ্যুতিক সংযোগ বিচ্ছিন্ন করার জন্য উপজেলা বিদ্যুৎ অফিসের লোকজনকে মুঠোফোনে অনুরোধ জানালেও সে সময় বৈদ্যুতিক সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়নি। দ্রুত সময়ের মধ্যে তখন বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হলে হয়ত ক্ষয়ক্ষতির পরিমান আরও কম হত বলে স্থানীয় লোকজনের ধারণা।

পরে স্থানীয় এলাকাবাসীর সহায়তায় বৈদ্যুতিক সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হলেও তৎক্ষনাৎ দুটি বসত ঘর পুড়ে ছায় হয়ে যায়। এ সময় ঘরে থাকা ৩টি গরু অগ্নিদগ্ধ হয়ে মারা যায়। এছাড়া ঘরের আসবাবপত্রসহ ঘরে থাকা নিত্য প্রয়োজনীয় সকল পণ্য পুড়ে ছায় হয়ে যায়। বর্তমানে পরিবারটিতে পরিধেয় বস্ত্র ছাড়া অবশিষ্ট কিছুই রইল না। ক্ষতিগ্রস্থ টুনু মিয়ার পরিবারে ৩ ছেলে ও ১ মেয়ে রয়েছে। পরিবারের লোকজন অসহায় অবস্থায় বর্তমানে খোলা আকাশের নিচে অবস্থান করছেন। অগ্নিকান্ডের এ ঘটনায় পরিবারটির ১০ লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে স্থানীয় লোকজনের ধারণা।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আর্কাইভ

April 2024
M T W T F S S
1234567
891011121314
15161718192021
22232425262728
2930  
আরও পড়ুন