২৯শে নভেম্বর, ২০২০ ইং | ১৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

EN

সরাইলে বিদেশ ফেরত ৫৫১জন, হোম কোয়ারেন্টাইনে ৩৯জন, হোম কোয়ারান্টাইন না মানায় ২জনকে ভ্রাম্যমান আদালতে জরিমানা

বার্তা সম্পাদক

প্রকাশিত: ৬:৫৩ অপরাহ্ণ , ২৫ মার্চ ২০২০, বুধবার , পোষ্ট করা হয়েছে 8 months আগে

20200325_175114

 

এম এ করিম সরাইল(ব্রাহ্মণবাড়িয়া)সংবাদদাতাঃ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে বিদেশ ফেরত ৫৫১ জনের মধ্যে ৩৯জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। করোনা ভাইরাসের ঝুঁকি মোকাবেলায় সতর্কতামূলক ব্যবস্থার অংশ হিসেবে সরকারী ও বেসরকারি বিভিন্ন মহলের পক্ষ থেকে বিদেশ ফেরতদের হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার অনুরোধ করা হলেও তা মানছেন না অনেকেই। উপজেলার অরুয়াইল এবং পাকশিমুল ইউনিয়নের বিদেশ ফেরত দুইজন হোম কোয়ারেন্টাইন না মানায় ভ্রাম্যমাণ আদালতে জরিমানা করা হয়েছে। হোম কোয়ারান্টাইন না মানায় উপজেলার অরুয়াইল ইউনিয়নের কাতার ফেরত সেলিম মিয়াকে (৩৫) ১০ হাজার টাকা এবং পাকশিমুল ইউনিয়নের ব্রাহ্মণগাঁও এলাকার মোঃ জাহাঙ্গীরকে ১০হাজার টাকা করে ভ্রাম্যমাণ আদালতে জরিমানা করা হয়েছে। গত মঙ্গলবার উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ফারজানা প্রিয়াঙ্কা নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট হিসেবে দায়িত্ব পালন করে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনার মাধ্যমে তাদের এ জরিমানা করেন। অনুসন্ধানে জানা যায়, সরাইল উপজেলার ৯টি ইউনিয়নে মোট বিদেশ ফেরত ৫৫১ জনের মধ্যে সরাইল সদর ইউনিয়নে ১৫১জন, কালিকচ্ছ ইউনিয়নে ৪৫জন, নোয়াগাঁও ইউনিয়নে ৬২জন, অরুয়াইল ইউনিয়নে ৪২জন, পাকশিমুল ইউনিয়নে ৬১জন, চুন্টা ইউনিয়নে ৭০জন, পানিশ্বর ইউনিয়নে ৬০জন, শাহবাজপুর ইউনিয়নে ২৫জন ও শাহজাদাপুর ইউনিয়নে ৩৫জন বিদেশ ফেরত এসেছেন। মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন দেশসহ প্রতিবেশী ভারত ও বিশ্বের অন্যান্য দেশ থেকে তারা দেশে এসেছেন বলে জানা গেছে। সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক, বিভিন্ন স্তরের জনপ্রতিনিধিসহ এলাকার সচেতন মহলের পক্ষ থেকে বিদেশ ফেরত ব্যক্তিদের জনস্বার্থে হোম কোয়ারান্টাইনে থাকার পরামর্শ দেওয়া হলেও তা মানছেন না অনেকেই। উপজেলায় করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে গণসচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে মাইকিং, পোস্টারিং, লিফলেট বিতরণ করাসহ গণসচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে
নানা উদ্যোগ গ্রহন করা হয়েছে। পাশাপাশি উপজেলার বিভিন্ন সংগঠনসহ সচেতন মহলের পক্ষ থেকে মার্ক্স বিতরণসহ সচেতনতামূলক নানা প্রচারনা চালানো হচ্ছে। এ ব্যপারে সরাইল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এর প্রধান কর্মকর্তা ও উপজেলা করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ কমিটির সদস্য সচিব ডা. নোমান মিয়ার সাথে মুঠোফোনে কথা হলে তিনি জানান, এ পর্যন্ত সরাইল উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্যমতে সরাইলে বিদেশ ফেরত ৩৯জনকে হোম কোয়ারান্টাইনে রাখা হয়েছে। নিয়ম অনুযায়ী ১৪দিন হোম কোয়ারান্টাইনে রাখার পর করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের কোনো লক্ষন না পাওয়া গেলে যে কেউ স্বাভাবিকভাবে চলাচল করতে পারেন। তবে এ পর্যন্ত সরাইলে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত কোনো রোগী পাওয়া যায়নি । তিনি আরও বলেন, সরাইল উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগের পক্ষ থেকে এ পর্যন্ত সর্বোচ্চ সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহন করা হয়েছে। আমাদের কমিউনিটি ক্লিনিকগুলো সার্বক্ষনিক প্রস্তুত রাখা হয়েছে। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পৃথক আইসোলেশন ওয়ার্ড প্রস্তুত রাখা হয়েছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আর্কাইভ

মার্চ ২০২০
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« ফেব্রুয়ারি   এপ্রিল »
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১  
আরও পড়ুন