৭ই জুন, ২০২০ ইং | ২৪শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

EN

আশুগঞ্জে সুধী সমাবেশে মন্ত্রী ছায়েদুল হক বাধা দিলে চুড়ি পড়ে থাকবো না

বার্তা সম্পাদক

প্রকাশিত: ৬:৪০ অপরাহ্ণ , ২২ এপ্রিল ২০১৭, শনিবার , পোষ্ট করা হয়েছে 3 years আগে

হরতালের মধ্যেই রোববার (২৩ মার্চ) ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগরে গিয়ে নির্ধারিত অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী অ্যড. ছায়েদুল হক।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত সুধি সমাবেশের প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বিজয়নগরে যাওয়ার ঘোষণা দেন।
হরতালের প্রসঙ্গ টেনে ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ আসনের সংসদ সদস্য র.আ.ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরীকে ইঙ্গিত করে মন্ত্রী বলেন, উনার (মোকতাদির চৌধুরী) বোঝা উচিত আমি পারিবারিক বা ব্যক্তিগত কোনো কাজ করছি না, মানুষকে সেবা দেয়ার জন্য বিল্ডিং (প্রাণিসম্পদ হাসপাতাল) উদ্বোধন করবো। আপনি বাধা দেবেন আর আমি মন্ত্রী হয়ে চুড়ি পড়ে বসে থাকবো না।
তিনি বলেন, নাসিরনগরকে বিশ্বসংবাদে পরিণত করার নায়ক মোকতাদির চৌধুরী। হিন্দু পল্লীতে হামলার দায় মোকতাদির চৌধুরীকেই নিতে হবে।
এসময় সরকারের উন্নয়নের ফিরিস্তি তুলে ধরে মন্ত্রী বলেন, শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ উন্নয়নের মহাসড়কে। বাংলাদেশ আরও এগিয়ে যাবে।
আশুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মো. হানিফ মুন্সির সভাপতিত্বে সুধি সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনের সংসদ সদস্য অাড. জিয়াউল হক মৃধা, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শফিকুল আলম, জেলা আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ সহসভাপতি মো. হেলাল উদ্দিন, সহসভাপতি তাজ মোহাম্মদ ইয়াছিন, প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামীলীগের উপদেষ্ঠা আমানুল হক সেন্টু, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক নেতা কামরুজ্জামান আনসারী, জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মিনারা আলম, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আমির হোসেন, তালশহর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাজী মোঃ আবু সামা, লালপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আবুল খায়ের, উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক মঈনুল হক মামুন প্রমুখ।
বিশেষ অতিথিরা তাদের বক্তব্যে সাংসদ মোকতাদির চৌধুরী ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আল মামুন সরকারের নানা কর্মকাণ্ডের ব্যাপক সমালোচনা করেন।
এ দিকে আশুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের একটি পক্ষ এই সুধী সমাবেশকে বর্জন করে আজ সন্ধ্যায় যুবলীগের আহ্বায়ক জিয়াউদ্দিন খন্দকার ও সদর ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান সালাহউদ্দিনের নেতৃত্বে কালোব্যাজ ধারণ ও বিক্ষোভ মিছিল করেন। এ সময় মিছিলটি শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে গিয়ে শেষ হয়।
এর আগে বৃহস্পতিবার দুপুরে বিজয়নগর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাড তানভীর ভূঁইয়া ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাড. জহিরুল ইসলাম ভূঁইয়া মন্ত্রী ছায়েদুল হকের রোববারের অনুষ্ঠান বর্জনের ঘোষণা দেন। পরে বিকেলেই উপজেলা আওয়ামী লীগ ও এর অঙ্গসহযোগী সংগঠন রোববার বিজয়নগরে সকাল-সন্ধ্যা হরতালের ঘোষণা দেন।
উল্লেখ্য, রোববার ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগর উপজেলা প্রাণিসম্পদ হাসপাতাল উদ্বোধন ও সুধি সমাবেশে যোগ দেয়ার কথা রয়েছে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী অ্যাড. ছায়েদুল হকের।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আর্কাইভ

এপ্রিল ২০১৭
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« মার্চ   মে »
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
আরও পড়ুন